ন্যামের মরদেহ ফেরত দিতে মালয়েশিয়াকে উত্তর কোরিয়ার হুঁশিয়ারি

ন্যামের মরদেহ ফেরত দিতে মালয়েশিয়াকে উত্তর কোরিয়ার হুঁশিয়ারি

আন্তর্জাতিক ডেস্ক:

উত্তর কোরিয়ার নেতা কিম জং উনের সৎভাই কিম জং ন্যামের হত্যার পেছনে এবার মালয়েশিয়াকে দোষারোপ করেছে উত্তর কোরিয়া। বুধবার মালয়েশিয়ার পুলিশ উত্তর কোরিয়ার দূতাবাসকে দোষারোপের জবাবে উল্টো মালয়েশিয়াকেই দুষলেন উত্তর কোরিয়ার কর্তৃপক্ষ।

কুয়ালালামপুর ন্যামের মরদেহ নিয়ে মিথ্যা ষড়যন্ত্র করছে বলে অভিযোগ করে দেশটির প্রতিনিধিরা। দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদ সংস্থা কেসিএনএ জানায়, ন্যাম এয়ারপোর্টে হৃদযন্ত্রক্রিয়া বন্ধ হওয়ায় হঠাৎ করে অসুস্থ হয়ে পড়েন ও মারা যান। তাকে হত্যা করা হয়েছে বলে মিথ্যে অভিযোগ প্রতিষ্ঠা করতে চাইছে মালয়েশিয়ার কর্তৃপক্ষ।

আন্তর্জাতিক আইন অনুযায়ী উত্তর কোরিয়ায় ন্যামের পরিবারের কাছে তার মরদেহ প্রদানের জন্য উত্তর কোরিয়ার প্রশাসন মালয়েশিয়াকে চ্যালেঞ্জ জানায়। মালয়েশিয়া ৪৫ বছর বয়সী ন্যামের মৃত্যুকে বিষ প্রয়োগের মাধ্যমে হত্যার মিথ্যা ষড়যন্ত্র করেছে বলে দাবি করেছেন তারা। মালয়েশিয়ান তদন্ত কর্মকর্তারা জানান, গত মঙ্গলবার রাজধানী কুয়ালালামপুরের বিমানবন্দরে ফ্লাইটের জন্য অপেক্ষারত অবস্থায় মারা যান ন্যাম।

বিমানবন্দরে বিষপ্রয়োগ করে হত্যা করা হয় ন্যামকে। হত্যাকারীরা তাদের হাতে বিষ মাখানো কাপড় লাগিয়ে রেখেছিলেন। সন্দেহভাজন হিসেবে এই নিয়ে উত্তর কোরিয়ার ২ নারীসহ ৪ জনকে আটক করেছে মালয়েশিয়ান পুলিশ।

মালয়েশিয়ার পুলিশ প্রধান আব্দুল সামাহ মাট জানান, এয়াপোর্টে ন্যামকে পেছন দিক থেকে মুখে জড়িয়ে ধরেন হত্যাকারীরা। এরপর তাকে বিষাক্ত কাপড়ের মাধ্যমে মুখে জড়িয়ে ধরে বিষ প্রয়োগ করা হয়। সাথে সাথে ন্যামের শারীরিক অবস্থা খারাপ হয়ে মারা যান।

এদিকে উত্তর কোরিয়ার প্রতিনিধিরা মালয়েশিয়ার এই অভিযোগকে মিথ্যা বলে নাকচ করে দিয়েছে। কেসিএনএ জানায়, যদি আটককৃতদের হাতে বিষ মাখানো কাঁপড় থাকায় ন্যাম মারা যায় তাহলে তাকে বিষ প্রয়োগকারী নারীরা কিভাবে বেঁচে গেল এমন প্রশ্ন উত্তর কোরিয়ার প্রতিনিধিদের।

আটককৃতদের নির্দোষ দাবি করে অনতিলম্বে মুক্ত করার জন্য মালয়েশিয়ার সরকারকে হুঁশিয়ারি দেয় উত্তর কোরিয়ার প্রশাসন। এছাড়াও উত্তর কোরিয়ার গোয়েন্দা সংস্থা দ্বারা পূণরায় ন্যামের হত্যার বিষয়টির তদন্ত করানো হবে বলে ঘোষণা দেওয়া হয়।

গত সপ্তায় উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রদূত ন্যাম হত্যার বিষয়ে উত্তর কোরিয়ার প্রতি মালয়েশিয়ান সরকারের প্রতিকূল মনোভাব প্রকাশের জন্য মালয়েশিয়ার বিরুদ্ধে ক্ষোভ প্রকাশ করেন।

গত সপ্তায় মালয়েশিয়ার হাসপাতালে ন্যামের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়। তবে পরিবারের ডিএনএ না পাওয়ার আগ পর্যন্ত ন্যামের মরদেহ উত্তর কোরিয়ায় তার স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করবে না বলে জানিয়েছে মালয়েশিয়ার পুলিশ।

স্কাই নিউজ

ন্যামের মরদেহ ফেরত দিতে মালয়েশিয়াকে উত্তর কোরিয়ার হুঁশিয়ারি

Check Also

বাংলাদেশের নির্বাচন নিয়ে হতাশা প্রকাশ কানাডার

সংবাদবিডি ডেস্ক ঃ বাংলাদেশের নির্বাচনী প্রক্রিয়া নিয়ে হতাশ প্রকাশ করেছে কানাডা। এছাড়া নির্বাচনের আগে ও …