গুগলকে ৫০০ কোটি ডলার জরিমানা

অনলাইন ডেস্ক: অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপ নিয়ে পাঁচশ’ কোটি ডলার জরিমানা গুণতে হচ্ছে ওয়েব জায়ান্ট গুগলকে। জরিমানার পরিমাণ ঠিক থাকলে অ্যান্টিট্রাস্ট মামলায় এটিই হবে রেকর্ড জরিমানা, ইইউ’র সিদ্ধান্তের সঙ্গে সম্পৃক্ত এক সূত্রের বরাতে এ খবর প্রকাশ করেছে ব্লুমবার্গ।

প্রথম কোন প্রতিষ্ঠান অ্যান্টি ট্রাস্টের এতো বড় পরিমাণ জরিমানার সম্মুখীন হল। গুগল যদিও এর আগে অ্যান্টি ট্রাস্টের রেকর্ড জরিমানার সম্মুখীন হয়েছে। কিন্তু সেটার পরিমাণ ছিল ২৪০ কোটি মার্কিন ডলার। আগেরবার ব্যবসার ক্ষেত্রে নিজেদের টুল ব্যবহার করে পক্ষপাতিত্বের অভিযোগে ওই জরিমানা করেছিল অ্যান্টি ট্রাস্ট।

ইউরোপিয় ইউনিয়ন উদ্বেগ প্রকাশ করে বলেছে, গুগল তাদের অ্যান্ড্রয়েড ইকোসিস্টেমে শুধু গুগলের অ্যাপ ডিফল্ট হিসেবে রাখতে ফোনের প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠানগুলোকে চাপ দিচ্ছিল।

এগুলোর মধ্যে ছিল যেসব প্রতিষ্ঠান গুগলের ক্রোম বা ক্রোম অ্যাপ তাদের ফোনে প্রি-ইন্সট করতো না তাদের ফোনে প্লে স্টোর রাখার সুযোগ রাখে না গুগল।

অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপবিষয়ক এই মামলায় জরিমানার নিয়ে গুগলের মালিক প্রতিষ্ঠান অ্যালফাবেট আর কমিশন কোনো মন্তব্য করতে অস্বীকৃতি প্রকাশ করেছে বলে প্রতিবেদনে উল্লেখ করা হয়।

বিশ্বে স্মার্টফোনের ব্যবহারকারীদের মধ্যে প্রায় ৮০ শতাংশই অ্যান্ড্রয়েডচালিত ডিভাইস ব্যবহার করেন। এই জরিমানা করার পর ফোন নির্মাতারা অ্যান্ড্রয়েড ফোনে ইনস্টলের জন্য গুগল অধীনস্থ নয় এমন অ্যাপ বাছাই করতে পারবে।

ইইউ এর পক্ষ থেকে বলা হয়, গুগল তার এই জনপ্রিয় অপারেটিং সিস্টেমের অপব্যবহার করেছে। অ্যানড্রয়েডের মাধ্যমে তারা প্রতিদ্বন্দ্বী প্রতিষ্ঠানগুলোর পণ্য প্রদর্শনের জায়গা ব্লক করে দিয়েছে, যেটা অনৈতিক।

প্লে অ্যাপ স্টোর-এর জন্য নিবন্ধনের সময় গুগলের সার্চ, ব্রাউজার আর অন্যান্য সেবার অ্যাপ রাখতে অ্যান্ড্রয়েড ফোন নির্মাতাদের সঙ্গে গুগলের চুক্তি নিয়ে তদন্ত করছে ইইউ কর্মকর্তারা।

তবে সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত তথ্য থেকে জানা যায়, এই জরিমানা আরোপের বিরুদ্ধে কোম্পানিটি আপিল করার সুযোগ পাবে।

Check Also

সব তাল ঠিক রাখতে গিয়ে সমালোচনা কুড়াচ্ছেন কলকাতার নায়িকা নুসরাত জাহান

সম্প্রতি শেষ হওয়া ভারতের লোকসভা নির্বাচনে বিজয়ী হওয়ার পর সিদ্ধান্ত নেন বিয়ের। পাত্র প্রেমিকা লিখিল …